রবিবার, ১৩ Jun ২০২১, ০৮:০১ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
ভালো থাকার সহজ উপায় শেখ হাসিনার ঐতিহাসিক কারামুক্তি দিবস উপলক্ষে বাউবির ছাত্র ঐক্য পরিষদের আলোচনা সভা প্রধানমন্ত্রীর কারামুক্তি দিবসে অসহায় দুস্থদের মাঝে দক্ষিণ যুবলীগের বস্ত্র বিতরণ নারী সদস্যকে শ্লীলতাহানির অভিযোগ কুড়িগ্রামে ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মামলা হাইমচর অনলাইন সাংবাদিক ফোরামের পক্ষ থেকে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যানকে ফুলের শুভেচ্ছা জানান নেতৃবৃন্দ ট্রাফিক-ডেমরা জোনের উদ্যোগে বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি পালন বুড়িগঙ্গায় লঞ্চের সিঁড়ি থেকে পড়ে পুলিশ সদস্যের মৃত্যু ঐতিহাসিক ৬ দফা দিবসে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে বাউবির ছাত্র ঐক্য পরিষদের শ্রদ্ধাঞ্জলি সিংড়ায় পিবিজি প্রকল্পের আওতায় কালভার্ট নির্মাণ বিশ্ব পরিবেশ দিবস উপলক্ষে বাউবির ছাত্র ঐক্য পরিষদের উদ্যােগে বৃক্ষ রোপন কর্মসুচি

নারী সদস্যকে শ্লীলতাহানির অভিযোগ কুড়িগ্রামে ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মামলা

এ আর হানিফঃ

কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীতে সংরক্ষিত মহিলা ইউপি সদস্যকে অসৎ উদ্দেশ্যে টানা হেঁচড়া ও বিভিন্ন কু-প্রস্তাব দেয়ার অভিযোগ উঠেছে নাওডাঙ্গা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মুসাব্বের আলী মুসা’র বিরুদ্ধে। এ ব্যপারে ভুক্তভোগী ওই নারী সদস্য বাদী হয়ে ফুলবাড়ী থানায় একটি অভিযোগ দাখিল করেছেন।থানাসুত্রে জানাগেছে বিষয়টি অত্র এলাকায় চাঞ্চল্য সৃষ্টি হওয়ায় অভিযুক্ত নাওডাঙ্গা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মুসাব্বের আলী মুসা’র বিরুদ্ধে মামলা পক্রিয়াধীন রয়েছে।
অভিযোগে জানা গেছে, উপজেলার নাওডাঙ্গা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মুসাব্বের আলী মুসা গত ১৯ মে ২০২১ আনুমানিক বেলা ২ টার দিকে ওই নারী সদস্যকে তার কক্ষে ডেকে চেয়ারে বসতে বলে। ওই নারী ইউপি সদস্য চেয়ারে বসলে চেয়ারম্যান অসৎ উদ্দেশ্যে তার ওড়না ধরে টানা হেচড়া করে।পরে ভুক্তভোগী তার ওড়না ছিনিয়ে নিয়ে চেয়ারম্যানের কক্ষ থেকে বের হয়ে এসে বিষয়টি অন্যান্য ইউপি সদস্য সান্তাদুল হক, আনোয়ার হোসেন, মহিলা সদস্য নাজমা বেগমকে অবগত করেন। অভিযোগে আরো জানা যায়, প্রায় দুই বছর আগে তাকে দৈহিক মেলামেশা করার জন্য প্রস্তাব দেয় চেয়ারম্যান। এমনকি পরিষদে লোকজন না থাকলে চেয়ারম্যানের মোবাইলে থাকা অশ্লীল ভিডিও, ছবি প্রদর্শন করে।ভুক্তভোগী ওই নারী ইউপি সদস্য জানায়, প্রায় দুই বছর ধরে চেয়ারম্যান সাহেব আমার সাথে কুরুচীপূর্ণ আচরন করে আসছেন। অনেক কুপ্রস্তাব দেন। আমি সেসবে রাজি না হওয়ায় ইউনিয়ন পরিষদ হতে প্রাপ্ত বিভিন্ন সুযোগ সুবিধা থেকে বঞ্চিত করে রেখেছে। একজন জনপ্রতিনিধির এরকম কুরুচীপূর্ণ স্বভাব মেনে নেয়ার মত নয়। আমি কোথাও এর প্রতিকার না পেয়ে আইনের আশ্রয় নিতে বাধ্য হয়েছি। আমি এর সুষ্ঠু বিচার চাই।
এব্যপারে জানার জন্য ওই ইউপি চেয়ারম্যান মুসাব্বের আলী মুসা’র মোবাইল ফোনে কথা হলে তিনি বলেন, আমার বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে, আমি আইনী লড়াই করব,মিডিয়াতে যাই লিখুক তাতে আমার কিছু যায় আসে না।
অভিযোগ পাওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করে ফুলবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ রাজীব কুমার রায় বলেন, নাওডাঙ্গা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মুসাব্বের আলী মুসা’র বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগের ভিত্তিতে মামলা দায়েরের প্রস্ততি চলছে।

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2017 dailydeshamar
Design & Developed BY Freelancer Zone