শনিবার, ০৬ মার্চ ২০২১, ০২:৪৪ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
ফের মানবিকতার পরিচয় দিল ট্রাফিক ইন্সপেক্টর সাইফুল ইসলাম  গাড়ীর কেভিনের ভেতরে আটকে পড়াদের  উদ্ধার করলো ফায়ার সার্ভিস ঐতিহাসিক ৭ মার্চকে সফল করতে বঙ্গবন্ধু পরিষদের আলোচনা সভা আমরা জাতির পিতার আদর্শের সৈনিক: এসপি সোনারগাঁয়ে জাদুঘর সংলগ্ন শাড়ির দোকান ও খাবার হোটেলে অভিযান রূপগঞ্জে প্রতিবন্ধী শিশুকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে বৃদ্ধ গ্রেফতার রূপগঞ্জে শিক্ষার্থীদের মাঝে সাইকেল বিতরণ তারাবো পৌর ৩নং ওয়ার্ড যুবলীগ নেতা মো: করিম সিকদারের বিরুদ্ধে টেন্ডার ও চাঁদাবাজির অভিযোগ। কোনাপাড়ায় ডাচ্ বাংলা ব্যাংক লিঃ এর এজেন্ট ব্যাংকিং শাখার শুভ উদ্বোধন করা হয়েছে। রাজধানীর মাতুয়াইলে প্লাস্টিক কারখানায় আগুন

আমাকে ব্যবহার করুন’ প্রশাসনের কর্মকর্তাদের উদ্দেশ্যে শামীম ওসমান

ডেস্কঃ

প্রশাসনের কর্মকর্তাদের উদ্দেশ্যে নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য শামীম ওসমান বলেছেন, নারায়ণগঞ্জে অনেক কিছু হচ্ছে যা আমরা জানিনা। অনেক কিছু আছে, যেটা ইচ্ছা করলে করা যায়। আপনারা যেই কাজটা এক মাসেও পারবেন না, আমার সেটা এক ঘন্টাও লাগবে না। কারণ আমি জানি যে, কোথায় কিভাবে কি করতে হয়। আমাকে ব্যবহার করুন, আমাকে ব্যবহার করলে আপনারও কিছু লাভ হবে।

সোমবার ২২ ফেব্রুয়ারি দুপুরে জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে জেলা উন্নয়ন ও সমন্বয় কমিটির মাসিক সভায় উপদেষ্টা হিসেবে উপস্থিত হয়ে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি সরকারি কর্মকর্তাদের উদ্দেশ্যে বলেন, একটা সেকেন্ডের জন্য মনে করবেন না যে এটা আপনার শহর নয়, আপনি যতক্ষন পর্যন্ত এখানে কাজ করবেন, ততক্ষন পর্যন্ত এটা আপনার শহর। কাউকে ভয় করবেন না, কাউকে কেয়ার করবেন না। আপনি যদি আপনার কাজে সঠিক থাকেন, কাউকে পরোয়া করবেন না। যদি কোন প্রতিবন্ধকতা আপনার সামনে আসে, আমি শামীম ওসমান কথা দিচ্ছি, আপনার সামনে দাঁড়াবো। আমি যদি দাঁড়াই, আল্লাহর রহমতে হিমালয় পর্বতও আপনাদের এখান থেকে তাড়াতে পারবে না। আমি আল্লাহ ছাড়া কাউকে ভয় করি না। একজন ভাই যেমন ভাই-বোনের পাশে থাকে, সেভাবে আমি আপনাদের পাশে থাকবো।’

নদী দখল ও চাঁদাবাজি চলছে অভিযোগ করে শামীম ওসমান বলেন, পাগলা এলাকায় বুড়িগঙ্গা নদীর তীরে বিআইডব্লিউটিএ যে ওয়াকওয়ে তৈরি করেছে, তা দখল করে মালপত্র লোড-আনলোডের সময় চাঁদাবাজি হয়। এখান থেকে মাসে পাঁচ লাখ টাকা চাঁদা আদায় করা হয়। এ চাঁদাবাজি কারা করে? কারা নদী দখল করে? শীতলক্ষ্যা নদীর কাঁচপুর ব্রীজের নিচে খাজনা আদায় করছে বিআইডব্লিউটিএ। সেই টাকা কার পকেটে যায়? বিভাগের লোকজনের পকেটে, না ইউনিয়ন নেতার পকেটে?

শামীম ওসমান আরো বলেন, ১৯৯৫-৯৬ এর শেষের দিকে আমাদের ১০টা ছেলেকে গুলি করে মারা হয়েছে। তাদের মধ্যে ২জনকে জেলা প্রশাসকের কার্যালয় সংলগ্ন মসজিদের পাশে কবর দেয়া হয়েছে। আমরা গোরস্থানেও নিতে পারি নাই। লাশের উপরেও ৭০টি গুলি করা হয়েছে। তো আমরা এই সিচুয়েশনটা ফেস করে এখানে এসেছি। কাঁধের মধ্যে অনেক লাশের বোঝা আছে। অনেক রক্ত আছে শরীরে লাগানো। আমরা তার প্রতিশোধ নেইনি।

সভায় জেলা প্রশাসক জেলার সকল দপ্তর প্রধানদের উন্নয়ন কর্মকান্ডের গুণগত মান বজায় রেখে দ্রুত বাস্তবায়নের নির্দেশনা দেন। তিনি জেলা প্রশাসনের বিভিন্ন উদ্যোগ সকলকে অবহিত করেন এবং বাস্তবায়নে সংশ্লিষ্ট সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।

জেলা প্রশাসক মোস্তাইন বিল্লাহর সভাপতিত্বে সভায় উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) মোস্তাফিজুর রহমান, সিভিল সার্জন ইমতিয়াজ আ

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2017 dailydeshamar
Design & Developed BY Freelancer Zone